ভারতে পাচারের সময় সাতটি স্বর্ণের বারসহ এক চোরাকারবারীকে আটক করেছে চুয়াডাঙ্গা ৬ বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)।

শুক্রবার সকালে জেলার দামুড়হুদা উপজেলার কাঁঠালতলা এলাকায় অভিযান চালিয়ে স্বর্ণের বারগুলো উদ্ধার করা হয়।

আটক চোরকারবারীর নাম শাহীন হোসেন(৩২)। তিনি টাঙ্গাইল জেলার মির্জাপুর থানার মৃত আমির উদ্দীনের ছেলে।

চুয়াডাঙ্গা ৬ বিজিবি জানায়, চুয়াডাঙ্গার সীমান্ত দিয়ে স্বর্ণ ভারতে পাচার করা হচ্ছে এমন খবর পেয়ে সকালে দামুড়হুদার কাঁঠালতলা এলাকার প্রধান সড়কে তল্লাশি চালায় চুয়াডাঙ্গা ৬ বিজিবির একটি বিশেষ দল। এসময় আলমডাঙ্গা থেকে ছেড়ে আসা নিউ মডার্নের একটি বাসে অভিযান চালিয়ে চোরাকারবারী শাহীনকে আটক করা হয়। পরে তার দেহ তল্লাশি করে সাতটি স্বর্ণের বার উদ্ধার করা হয়েছে।

চুয়াডাঙ্গা ৬ বিজিবির পরিচালক ইমাম হাসান সংবাদ মাধ্যমকে জানান, সাতটি বারের ওজন আটশ’ ১৫ গ্রাম। যার বাজারমূল্য প্রায় ৩৫ লাখ টাকা।

তিনি আরও জানান, উদ্ধারকৃত স্বর্ণ চুয়াডাঙ্গা ট্রেজারি অফিসে জমা দেয়া হয়েছে। আটক চোরাকারবারী শাহীনকে দামুড়হুদা মডেল থানায় সোপর্দের প্রক্রিয়া চলছে।