পুঁজিবাজারে গতি ফেরাতে স্বল্প সুদে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদের অর্থের যোগান দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক। আগামী তিন কার্যদিবসের মধ্যে এই অর্থ যোগান দেয়া শুরু হবে বলে বাংলাদেশ ব্যাংক সুত্রে জানা গেছে।

পুঁজিবাজারের সংকট নিরসনে প্রতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীরা স্বল্প সুদে তহবিল চেয়ে সম্প্রতি অর্থ মন্ত্রনালয়ের কাছে প্রস্তাব দেয়। বাজারকে সাপোর্ট দিতে ও তারল্য সংকট নিরসনে স্বল্প সুদে এই ঋণ চায় প্রতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীরা। অবশেষে কিছু শর্ত স্বাপেক্ষ্যে প্রতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদেরকে এই তহবিল দিতে সম্মত হয় বাংলাদেশ ব্যাংক।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, এর আগে পুঁজিবাজারকে সাপোর্ট দিতে একাধিকবার সরকার আইসিবির মাধ্যমে তহবিল সরবরাহ করলেও কোন কাজে আসেনি। বরং আইসিবির দিকে নানা ধরনের অনিয়ম ও কারসাজির অভিযোগ উঠেছে। তাই সরাসরি প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদেরকে তহবিল দিয়ে বাজারকে সহায়তা করবে সরকার। বাংলাদেশ ব্যাংক সরাসরি এই তহবিল সরবরাহ করবে।

প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদের অর্থ বিতরণে শর্তগুলোর মধ্যে অন্যতম হল: ক) অর্থের মেয়াদ হবে সর্বোচ্চ ৬ বছর। সুদ হবে ৩ থেকে ৪ শতাংশ। খ) দুই বছরের আগে কেউ শেয়ার বিক্রি করতে পারবে না। গ) দুই বছর পর শেয়ার বিক্রি করে প্রথমেই সরকারের টাকা ফেরত দিতে হবে।