বীমা কর্পোরেশনকে বিনা জামানতে ঋণ নেয়ার বিধানসহ জীবন বীমার জন্য মূলধন ৩০০ কোটি ও সাধারণ বিমার জন্য মূলধন ৫০০ কোটি টাকা নির্ধারণ করে ‘বীমা কর্পোরেশন বিল, ২০১৯ সংসদে উত্থাপিত হয়েছে।

বুধবার সংসদে বিলটি উত্থাপিত হয়। বিলটি উত্থাপন করেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল। এরআগে বিলটি উত্থাপনের বিষয়ে আপত্তি তোলনে বিরোধী দলীয় সদস্য ফখরুল ইমাম। তবে কন্ঠভোটে সেই আপত্তি নাকচ হয়ে যায়।

বিলে বলা হয়েছে, জীবন বীমার জন্য অনুমোদিত মূলধন হবে তিনশ’কোটি টাকা এবং পরিশোধিত মূলধন হবে ত্রিশ কোটি টাকা। একইভাবে সাধারণ বিমার জন্য অনুমোদিত মূলধন হবে পাঁচশ’কোটি টাকা এবং পরিশোধিত মূলধন হবে ১২৫ কোটি টাকা। তবে সরকার গেজেট প্রজ্ঞাপন দ্বারা মূলধনের পরিমাণ পরিবর্তন করতে পারবে।

বিলে কর্পোরেশনের দায়সমুহের মূল্যমান নির্ধারণের পর উদ্ধৃত্ত অর্থের ৯৫ শতাংশ বোর্ডের অনুমোদন সাপেক্ষে পলিসি গ্রহাহকদের মধ্যে বন্টন করা যাবে। এছাড়া সরকারের পূর্বানুমোদন ছাড়া শতকরা ৯৫ শতাংশের অধিক অর্থ বীমা পলিসি গ্রাহকদের মধ্যে বন্টন করা যাবে না।

বিলে সরকারি সম্পত্তি বীমা করণ সম্পর্কে বলা হয়েছে, সরকারি সম্পত্তি বা সংশ্লিষ্ট ঝুঁকি বা দায় সম্পর্কিত সব নন লাইফ বীমা ব্যবসা একশ ভাগ সাধারণ বীমা কর্পোরেশনের নামে আন্ডার রাইট হবে। তবে সাধারণ বীমা নিজের জন্য পঞ্চাশ ভাগ অংশ রেখে বাকি ৫০ ভাগ বেসরকারি নন-লাইফ বীমা কোম্পানির মধ্যে সমহারে বন্টন করে দেওয়ার বিধান রাখা হয়েছে। এছাড়া বিলে বিনা জামানতে বাণিজ্যিক ব্যাংক থেকে ঋণ নেয়ার বিধান রাখা হয়েছে।