জানা ‍বা অজানায় গোনাহ হয়ে গেলে সঙ্গে সঙ্গে আল্লাহর কাছে ক্ষমা চাওয়াই হলো মুমিন মুসলমানের অন্যতম গুণ। আর তা-ই করেছেন উম্মুল মুমিনিন হজরত আয়েশা রাদিয়াল্লাহু আনহা।

হজরত আয়েশা রাদিয়াল্লাহু আনহা একবার প্রিয় নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের জন্য একটি গদি কিনে আনেন। কিন্তু সে গদিটি ছিল প্রাণীর ছবিযুক্ত। বিশ্বনবি তা দেখে ঘরে প্রবেশ না করেই দরজায় দাঁড়িয়ে রইলেন। এ সময় হজরত আয়েশা রাদিয়াল্লাহু আনহা আল্লাহর কাছে ক্ষমা প্রার্থনা করেন। হাদিসের বর্ণনায় তা ফুটে ওঠেছে-

হজরত আয়েশা রাদিয়াল্লাহু আনহা বর্ণনা করেন, ‘একবার তিনি (প্রিয় নবির জন্য) একটি গদি কেনেন। তা ছিল ছবিযুক্ত। রাসুলুল্লাহ (তা দেখে) দরজায় দাঁড়িয়ে থাকলেন। ঘরে (কামড়ায়) প্রবেশ করলেন না। তখন হজরত আয়েশা রাদিয়াল্লাহু আনহা এই দোয়ার মাধ্যমে আল্লাহর কাছে ক্ষমা চান। (বুখারি) তাহলো-

أتُوبُ إلى اللَّهِ ممَّا أذْنَبْتُ

উচ্চারণ : আতুবু ইলাল্লাহি মিম্মা আজনাবতু।

অর্থ : ‘আমি যে গোনাহ করেছি, তা থেকে আল্লাহর কাছে ক্ষমা প্রার্থনা করছি।’

সুতরাং গোনাহ হয়ে গেলে সঙ্গে সঙ্গে আল্লাহর কাছে হজরত আয়েশা রাদিয়াল্লাহু আনহার করা তাওবাহ-এর মাধ্যমে ক্ষমা প্রার্থনা করা জরুরি।

আল্লাহ তাআলা মুসলিম উম্মাহকে গোনাহ হয়ে গেলে সঙ্গে সঙ্গে তা থেকে ক্ষমা প্রার্থনা করতে এ ইসতেগফারটি বেশি বেশি পড়ার তাওফিক দান করুন। আমিন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here