ট্রাম্প হারলেন কেন, বললেন ইমরান খান

করোনাভাইরাস মহামারির কারণেই প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প নির্বাচনে হেরেছেন বলে মন্তব্য করেছেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। তিনি মনে করেন, সংবাদমাধ্যমের সব জরিপ ট্রাম্পের বিপক্ষে গেলেও তিনিই জিততেন, যদি না করোনাভাইরাস মহামারি আসত।

শনিবার পাকিস্তানি সংবাদমাধ্যম এক্সপ্রেস নিউজের অনুষ্ঠান ‘টু দ্য পয়েন্টে’ একটি সাক্ষাৎকারে ইমরান খান এ কথা বলেন। ট্রাম্পের পুনর্নির্বাচনের ক্ষতির উদাহরণ উল্লেখ করে ইমরান বলেন, সমাজে সংবাদমাধ্যমের গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা থাকলেও এটি একজন নেতার দেশ শাসনে হুমকি নয়। খবর ডনের

তিনি অনুষ্ঠানটির সঞ্চালক মনসুর আলী খানকে বলেন, সংবাদমাধ্যম (সমালোচনা) নিয়ে আমার কোনো সমস্যা নেই। সংবাদমাধ্যম কেবল একটি অস্থায়ী ক্ষতির কারণ হতে পারে। এর একটি ভালো উদাহরণ হতে পারেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। মূলধারার সব সংবাদমাধ্যম ট্রাম্পকে যেভাবে আক্রমণ করেছে, তাতে মনে হয়েছিল, তার শোচনীয় পরাজয় হবে। আসলে কিন্তু তা হয়নি। আমেরিকার ইতিহাসে সবচেয়ে বেশি ভোট পেয়েছেন ট্রাম্প। জো বাইডেন তার চেয়ে বেশি ভোট পেয়েছেন, এটা আলাদা।

যুক্তরাষ্ট্রে এখনও ব্যাপক হারে বাড়ছে করোনাভাইরাস আক্রান্ত। মৃত্যুও বাড়ছে। এদিকে টানা লকডাউনে দেশের অর্থনীতিতেও কঠিন পরিস্থিতি। বেকারত্ব বেড়েছে আশঙ্কাজনক হারে। ইমরান খান এ বিষয় টেনে বলেন, যুক্তরাষ্ট্রে যদি কভিড-১৯ এর কারণে ব্যাপক হারে মৃত্যু ও বেকারত্ব না বাড়ত, তাহলে সংবাদমাধ্যম যা-ই করুক না কেন ডোনাল্ড ট্রাম্পই জিততেন।

তিনি বলেন, গণতন্ত্রের ক্ষেত্রে গণমাধ্যমের একটি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা আছে। কিন্তু এটি কখনও কখনও ‘স্বাধীনতার পাশাপাশি দায়বদ্ধতা’ প্রদর্শন করে না এবং ‘প্রচার ও অপবাদ প্রচারের’ বিশৃঙ্খলা অবলম্বন করে। যা অর্থনৈতিক পুনর্জাগরণের জন্য সরকারের প্রচেষ্টাকে আঘাত করতে পারে।