যুক্তরাষ্ট্রের নিউ জার্সি রাজ্যের আটলান্টিক সিটিতে সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের নামে যে বিখ্যাত হোটেলটি ছিল, সেই ট্রাম্প প্লাজা হোটেল অ্যান্ড ক্যাসিনো গুঁড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। স্থানীয় সময় বুধবার সকালে ডিনামাইট দিয়ে স্থাপনাটি ধ্বংস করে দেওয়া হয়।

ডোনাল্ড ট্রাম্প যখন রিয়েল এস্টেট ব্যবসার সঙ্গে যুক্ত ছিলেন, সে সময় ১৯৮৪ সালে বহুতল এই ভবনটি তৈরি করেছিলেন তিনি। পরে ২০০৯ সালে নিজেকে দেউলিয়া ঘোষণা করলে ট্রাম্প প্লাজা হোটেল ও ক্যাসিনোর মালিকানা হারান তৎকালীন রিয়েল এস্টেট ব্যবসায়ী ট্রাম্প। সে বছর নিলামে ওঠা ভবনটি কিনেছিলেন কার্ল সি একহান নামের একজন ব্যবসায়ী।

তবে ট্রাম্পের মালিকানা না থাকলেও এই নামেই ২০১৪ সাল পর্যন্ত চালু ছিল এই হোটেল ও ক্যাসিনো। তারপর এটি বন্ধ করে দেওয়া হয়। ক্যাসিনো ব্যবসায় ধস নামা ও প্রতিদ্বন্দ্বিতায় টিকতে না পারাই ছিল এটি বন্ধ করার মূল কারণ। এরপর থেকে ভবনটির তেমন রক্ষাণাবেক্ষণ আর করা হয়নি।

আগে থেকেই ভবন সংলগ্ন দীর্ঘ এলাকাজুড়ে নিরাপত্তা বেষ্টনি দেওয়া হয়েছিল। বুধবার সকালে ডিনামাইট চার্জ করার পর মাত্র সাত সেকেন্ডে ধসে পড়ে ট্রাম্প প্লাজা হোটেল অ্যান্ড ক্যাসিনো।

স্থাপনাটিকে বিদায় জানাতে শীতল আবহাওয়া উপেক্ষা করে সেখানে জড়ো হয়েছিলেন হাজারো মানুষ। একসময় মাথা উঁচু করে দাঁড়ানো ভবনটির ভেঙে পড়া প্রত্যক্ষ করেন তারা।

একসময়ে ট্রাম্পের মালিকানাধীন নিউ জার্সির আটলান্টিক সিটির সমুদ্রতীরের এই স্থাপনাটি পর্যটকদের অন্যতম গন্তব্যস্থল ছিল। ক্যাসিনো ও মনোরম সব হোটেলে সাজানো নিউ জার্সির আটলান্টিক সিটিকে যুক্তরাষ্ট্রের উত্তর-পূর্বাঞ্চলের ‘লাস ভেগাস’হিসেবে অভিহিত করা হতো। আটলান্টিক সিটির অন্যতম আকর্ষণ ছিল ট্রাম্প প্লাজা হোটেল অ্যান্ড ক্যাসিনো।

দিন–রাত আলো ঝলমলে থাকা এই হোটেলে আসতেন বিশ্বের প্রধান প্রধান সেলিব্রিটিরা। মুষ্টিযুদ্ধের তারকা মোহাম্মদ আলী থেকে মাইক টাইসন, অপরাহ্ উইনফ্রে থেকে শুরু করে হলিউডের নামীদামি তারকাদের পদভারে একসময় সরগরম থাকত ট্রাম্প প্লাজা হোটেল অ্যান্ড ক্যাসিনো। তবে কয়েক বছর ধরে বন্ধ হয়ে থাকায় অনেকটাই ভঙ্গুর হয়ে পড়েছিল ভবনটি।

সূত্র: রয়টার্স

 

আরও পড়ুন:

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here