পুঁজিবাজারের তালিকাভুক্ত ১২টি কোম্পানি জেড থেকে এ ও বি ক্যাটাগরিতে ফিরছে। নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) অনুযায়ী আজ বুধবার (২ সেপ্টেম্বর) থেকে এই সিদ্ধান্ত কার্যকর হবে। কমিশনের ৭৩৫তম সভায় নেওয়া সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন করার জন্য গত ১ সেপ্টেম্বর একটি নির্দেশনা দিয়েছে বিএসইসি।

বিএসইসির নির্দেশনা অনুযায়ী, তালিকাভুক্ত ‘এ’ বা ‘বি’ ক্যাটাগরিভুক্ত কোনো কোম্পানি পূর্ববর্তী বছরে লভ্যাংশ দিলে পরের বছর তা দিতে না পারলেও সেটি জেড ক্যাটাগরিতে যাবে না। ওই কোম্পানির শেয়ার লেনদেন আগের ক্যাটাগরি অনুযায়ী হবে। তবে পরপর দু’বছর লভ্যাংশ দিতে ব্যর্থ হলে বা বোনাস লভ্যাংশ দিলে ওই কোম্পানি জেড ক্যাটাগরিভুক্ত হবে। নতুন এ নিয়মের ফলে বিদ্যমান ১২ কোম্পানি জেড ক্যাটাগরি থেকে পূর্ববর্তী এ ও বি ক্যাটাগরিতে ফিরছে।

এ ক্যাটাগরিতে আসবে: নতুন এ নির্দেশনার ফলে আজ থেকে ৬টি কোম্পানি এ ক্যাটাগরিতে লেনদেন হবে। কোম্পানিগুলো হলো- এবি ব্যাংক, ফু-ওয়াং সিরামিক, হেইডেলবার্গ সিমেন্ট, লিবরা ইনফিউশনস, প্রাইম ইন্স্যুরেন্স ও রেনউয়িক যজ্ঞেশ্বর।

বি ক্যাটাগরিতে আসবে: নতুন এ নির্দেশনার ফলে আজ থেকে ৬টি কোম্পানি এ ক্যাটাগরিতে লেনদেন হবে। কোম্পানিগুলো হলো- বিডি থাই, অ্যাপোলো ইস্পাত, খান ব্রাদার্স পিপি, সাফকো স্পিনিং, সালভো কেমিক্যাল ও জাহিনটেক্স।

নতুন নির্দেশনায় বলা হয়েছে, তালিকাভুক্ত কোনো কোম্পানি জেড ক্যাটাগরিতে অবনমন হলে ৪৫ কার্যদিবসের মধ্যে পর্ষদ পুনর্গঠন করতে হবে। পুনর্গঠিত পর্ষদে আগের পরিচালকরা থাকতে পারবেন না। চাইলে কমিশন এক বা একাধিক স্বতন্ত্র পরিচালক নিয়োগ দিতে পারবে।

নির্দেশনাটিতে আরও বলা হয়েছে, পর পর দুই বছর জেড ক্যাটাগরিতে থাকলে সংশ্নিষ্ট কোম্পানির উদ্যোক্তা ও পরিচালকরা তালিকাভুক্ত কোনো কোম্পানি বা স্টক এক্সচেঞ্জ বা পুঁজিবাজার সংশ্নিষ্ট কোনো প্রতিষ্ঠানের পর্ষদে থাকতে পারবেন না।