যুক্তরাষ্ট্রের নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন যদি ইরানের ওপর আরোপিত সব ধরনের নিষেধাজ্ঞা তুলে নেন, তাহলে ইরান ২০১৫ সালে করা চুক্তির সব শর্তই মেনে নেবে। জো বাইডেন ক্ষমতাগ্রহণের পর চাইলে তা করতে পারেন। 

বাইডেন অবশ্য আগেই বলেছিলেন, ইরান চুক্তিতে উল্লেখিত সব শর্ত মানতে রাজি হলে তিনি চুক্তিতে ফিরে আসার কথা বিবেচনা করতে পারেন। ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী মোহাম্মদ জাভাদ জারিফ একথা বলেন। খবর আল জাজিরার।

২০১৫ সালে ইরানের সঙ্গে ছয় বিশ্বশক্তির পরমাণু বিষয়ক চুক্তি হয়েছিল। ওবামা প্রশাসনের এই চুক্তিকে `একপেশে এবং অন্যায্য’ বলে আখ্যায়িত করে ২০১৮ সালে চুক্তি থেকে নিজেদের প্রত্যাহার করে নেয় ট্রাম্প প্রশাসন। এরপর তারা ইরানের ওপর আগের সে নিষেধাজ্ঞাগুলো আরোপ করতে শুরু করে। যুক্তরাষ্ট্রে ক্ষমতার পট পরিবর্তনের কারণে ইরান এখন দেশটির কাছ থেকে আরোপিত নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করা হতে পারে বলে আশা প্রকাশ করেছে।

তবে বিশেষজ্ঞ এবং কূটনীতিবিদরা মনে করছেন, বাইডেন প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব গ্রহণ করলেও রাতারাতি যুক্তরাষ্ট্রের পক্ষে ২০১৫ সালে পরমাণু চুক্তিতে ফিরে আসা সম্ভব হবে না। কারণ পরিবর্তিত পরিস্থিতিতে উভয় পক্ষই উভয় পক্ষের কাছ থেকে আরও অতিরিক্ত কিছু প্রতিশ্রুতি পেতে চাইবে এবং তা নিয়ে দর কষাকষি চলতে থাকবে। 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here