পাবজি চ্যাম্পিয়নশিপে শীর্ষে মঙ্গোলিয়া

সংযুক্ত আরব আমিরাতে চলমান পাবজি মোবাইল গ্লোবাল চ্যাম্পিয়নশিপের তৃতীয় দিনটাও নিজেদের করতে পারল না বাংলাদেশ। ১৬ দেশের তালিকায় অবস্থান সবার নিচে। সোমবার ২০ পয়েন্ট পেয়েছে বাংলাদেশের দল এ-ওয়ান-ই-স্পোর্টস।

তিনজন প্লেয়ার করোনা আক্রান্ত হওয়ায় টুর্নামেন্ট স্থগিত করতে বাধ্য হয়েছিল আয়োজকরা। তবে খুব বেশি কালক্ষেপণ হয়নি। দুই দিন বিরতির পরই আবারও মোবাইল হাতে প্রতিযোগিতার ময়দানে অংশগ্রহণকারীরা।

বাংলাদেশ থেকে অংশ নিয়েছেন পাঁচজন। খেলোয়াড়ি নাম সিনিস্টার, সৈকত, দান্তে, সিক্সএনআইএনথ্রি, আরএক্সজ্যাক্স। প্রথম দুই দিনে এওয়ানইস্পোর্টসের সংগ্রহ ছিল ৫৯ পয়েন্ট। এদিন যা বেড়ে হয়েছে ৭৯। পয়েন্ট বাড়লেও টেবিলে উন্নতি করতে পারেনি বাংলাদেশের দলটি। আছে একেবারে তলানিতেই।

প্রথম দুই দিনে ম্যাচ হয়েছিল ১৩টি। তৃতীয় দিনে হয়েছে আরও ৭ ম্যাচ। এই ২০ ম্যাচে এওয়ানইস্পোর্টসের মোট প্লেসমেন্ট পয়েন্ট ৩৪ আর কিল পয়েন্ট ৪৫।

পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষে আছে মঙ্গোলিয়ান দল জিউস। এওয়ানইস্পোর্টসের চেয়ে অনেকটাই এগিয়ে তারা। তাদের পয়েন্ট ২১১। যার মধ্যে প্লেসমেন্ট পয়েন্ট ১০০ আর কিল পয়েন্ট ১১১।

খুব একটা ভালো করতে না পারলেও, সিজন জিরোতে অংশগ্রহণ নিয়েই বেশ রোমাঞ্চিত বাংলাদেশের প্লেয়াররা। লিগ পর্ব থেকে ১৬ দল কোয়ালিফাই করে উঠেছে ফাইনালের মঞ্চে। ২১ থেকে শুরু হয়ে ২৬ জানুয়ারি শেষ হচ্ছে আসর। বাংলাদেশের দল এওয়ানইস্পোর্টস পাবজি খেলে এখন পর্যন্ত আয় করেছে ২৮ হাজার ৯০৭ মার্কিন ডলার।