পুঁজিবাজার নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) মার্জিন ঋণের বিপরীতে সুদ নির্ধারণ করে দিচ্ছে। ব্রোকারেজ হাউজ ও মার্চেন্ট ব্যাংকগুলো বিনিয়োগকারীদের কাছ থেকে মার্জিন ঋণের বিপরীতে সর্বোচ্চ ১২ শতাংশ সুদ নিতে পারবে। বিএসইসি সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

সূত্র মতে, মার্চেন্ট ব্যাংক ও ব্রোকারেজ হাউজগুলা বিনিয়োগকারীদের থেকে কস্ট অফ ফান্ডের থেকে ৩ শতাংশের বেশি সুদ নিতে পারবে না। এরফলে মার্জিন ঋণের সুদ কমানোর বিনিয়োগকারীদের দীর্ঘদিনের দাবি পূরণ করতে যাচ্ছে বিএসইসি।

অধ্যাপক শিবলী রুবাইয়াত-উল ইসলামের নেতৃত্বাধীন কমিশন পুঁজিবাজারের উন্নয়নে ও বিনিয়োগকারীদের আস্থা বৃদ্ধিতে একের পর এক চমক দেখিয়ে যাচ্ছে। মার্জিন ঋণের সুদ কমানোর জন্য দীর্ঘদিন যাবত দাবি করে আসছিল বিনিয়োগকারীরা। তার পরিপেক্ষিতে নিয়ন্ত্রক সংস্থা এমন সিদ্ধান্ত নিতে যাচ্ছে বলে বিএসইসির সূত্র জানায়।

এদিকে বিভিন্ন ব্রোকারেজ হাউজ ও মার্চেন্ট ব্যাংকের বিরুদ্ধে অভিযোগ রয়েছে বেশি সুদ নেয়ার। কোন কোন ব্রোকারেজ হাউজ ১৮ থেকে ২০ শতাংশ সুদ নিচ্ছে বলে বিনিয়োগকারীরা অভিযোগ করেছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here