করোনাভাইরাস মহামারির সংকট থেকে উত্তরণের জন্য বাংলাদেশকে ২৫ কোটি ডলার ( ২১২৫ কোটি টাকা) ঋণ দিয়েছে বিশ্বব্যাংক। এ অর্থ দিয়ে দেশে নতুন কর্মসংস্থান সৃষ্টিতে কাজ করবে সরকার। পাশাপাশি করোনা মহামারির ক্ষতি থেকে উত্তরণে সহায়তা করবে এ অর্থ।

শনিবার (২৭ মার্চ) গণমাধ্যমে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে সংস্থাটি এ তথ্য জানায়।

বিশ্বব্যাংক বাংলাদেশ-ভূটানের কান্ট্রি ডিরেক্টর মার্সি টেম্বন বলেন, বাংলাদেশে করোনা মহামারির কারণে যারা চাকরি হারিয়েছেন, এ ঋণ সহায়তা তাদের চাকরি পাওয়ার পথ সুগম করবে।

অর্থনীতি ও শেয়ারবাজারের গুরুত্বপূর্ন সংবাদ পেতে আমাদের সাথেই থাকুন:বিজনেসজার্নালবিজনেসজার্নাল.বিডি

করোনা মহামারিতে যাদের চাকরি গেছে, যারা এখনো হিমশিম খাচ্ছেন ঘুরে দাঁড়াতে, এই অর্থ ব্যয় হবে তাদের জন্য। সরকারের ৫০ লাখ কর্মসংস্থান সুরক্ষিত রাখার যে কার্যক্রম, সেই প্রকল্পে কাজে লাগবে এই অর্থ। পাশাপাশি ক্ষতিগ্রস্ত ক্ষুদ্র ও মাঝারি ব্যবসা আর বিনিয়োগের খাতেও ব্যয় করা হবে এ অর্থ।

বিশ্বব্যাংকের প্রধান অর্থনীতিবিদ এলিন কোডুয়েল বলেন, মহামারিতে মানুষের আয় কমেছে, জীবনযাত্রার মান কমেছে, নারীরাই বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। ক্ষতিগ্রস্ত নারীদের জন্য কর্মসংস্থান নিশ্চিত করতে এই অর্থ ব্যয় হবে। বিশ্বব্যাংকের আন্তর্জাতিক উন্নয়ন সংস্থা আইডিএ’র মাধ্যমে বাংলাদেশ ১ হাজার ৪শ’ কোটি ডলার ঋণ পেয়েছে। স্বাধীনতার পর থেকে এখন পর্যন্ত বাংলাদেশকে দফায় দফায় স্বল্প সুদে ঋণ দিয়েছে বিশ্বব্যাংক।

বিজনেসজার্নাল/ঢাকা/এনইউ

 

আরও পড়ুন:

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here