৫০ হাজার টাকা মুচলেকা ও প্রতি মঙ্গলবার আদালতে হাজিরা দেয়ার শর্তে মাদক ও অবৈধ ওয়াকিটকি রাখার দায়ে দণ্ডপ্রাপ্ত ইরফান সেলিমকে জামিন দিয়েছেন আদালত। মঙ্গলবার (৫ জানুয়ারি) ঢাকার অতিরিক্ত ম্যাজিস্ট্রেট আদালত এ রায় দিয়েছেন।

এর আগে সোমবার (৪ জানুয়ারি) সকালে চকবাজার থানা পুলিশ সিএমএম আদালতে র‍্যাবের অভিযানে গ্রেফতার সংসদ সদস্য হাজী সেলিমের ছেলে ও ঢাকা দক্ষিণ সিটির বহিষ্কৃত কাউন্সিলর ইরফান সেলিমকে অস্ত্র ও মাদক মামলা থেকে অব্যাহতি দিতে সুপারিশ করে আদালতে চূড়ান্ত তদন্ত প্রতিবেদন দেয় পুলিশ।

এর আগে গত ১৪ নভেম্বর ৫ দিনের রিমান্ড শেষে ইরফান সেলিম ও তার দেহরক্ষী জাহিদকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

গত ২৬ অক্টোবর র‌্যাব পুরান ঢাকার চকবাজারে হাজী সেলিমের বাড়িতে অভিযান চালায়। এ অভিযানে  অবৈধ মদ, অস্ত্র ও ওয়াকিটকি উদ্ধার করা হয়। সেখান থেকে র‌্যাব ইরফান সেলিম ও জাহিদকে হেফাজতে নেয়। মদ ও ওয়াকিটকি রাখার দায়ে র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালত ২ আসামিকে ১৮ মাসের কারাদণ্ড দেন। পরে তাদের বিরুদ্ধে চকবাজার থানায় মাদক ও অস্ত্র আইনে মামলা দায়ের করা হয়।

উল্লেখ্য, গত ২৫ অক্টোবর, রোববার রাতে এমপি হাজী সেলিমের ‘সংসদ সদস্য’ লেখা সরকারি গাড়ি থেকে নেমে নৌবাহিনীর কর্মকর্তা ওয়াসিফ আহমেদ খানকে মারধর করা হয়। রাজধানীর কলাবাগান সিগন্যালের পাশে এ ঘটনা ঘটে। রাতে এ ঘটনায় জিডি হলেও সোমবার (২৬ অক্টোবর) ভোরে হাজী সেলিমের ছেলে ইরফানসহ সাতজনের বিরুদ্ধে মামলা হয়। পরে দুপুরে ইরফানকে গ্রেফতার করে র‌্যাব।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here